logo

   

বিস্তারিত সংবাদ

News Photo অটোরিক্সা চালকের হাতে রাবি ছাত্র প্রহৃতের জের/ দফায় দফায় মহাসড়ক অবরোধ : আহত ১
ব্যাটারি চালিত অটোরিক্সা চালকের হাতে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র লাঞ্ছিতের প্রতিবাদে শিক্ষার্থীরা গতকাল মঙ্গলবার ক্যাম্পাসের প্রধান ফটক সংলগ্ন ঢাকা-রাজশাহী মহাসড়ক দু’দফা অবরোধ করে রাখে। এদিকে নগরীর অটোরিক্সা চালকরাও পাল্টা অবরোধ করে। এসময় অটোরিক্সা চালকরা রাবি’র এক শিক্ষার্থীকে পিটিয়ে গুরুতর আহত করে। জানা গেছে, অতিরিক্ত ভাড়া না দেওয়ায় বিশ্ববিদ্যালয়ের মার্কেটিং বিভাগের ২য় বর্ষের শিক্ষার্থী আমজাদ হোসেন ময়নাকে গত ১৬ অক্টোবর রাতে স’ানীয় অটোরিক্সা চালক কটু এবং তার ভাই সাজু হাদিরমোড় এলাকাতে বেধড়ক মারধর করে। এর প্রতিবাদ এবং অটোরিক্সা চালকের বিচারের দাবিতে ওই বিভাগের শিক্ষার্থীরা গতকাল বেলা ১২টা থেকে ঘন্টাব্যাপি মহাসড়ক অবরোধ করে রাখে। এতে দীর্ঘ যানজটের সৃষ্টি হয়। পরে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টরিয়াল বডি ঘটনাস’লে এসে বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীদের দাবি মেনে নেওয়ার আশ্বাস দিলে পরিসি’তি শান্ত হয়। এদিকে অটোরিক্সা চালকরাও অবরোধের ডাক দিয়ে নগরীর তালইমারী মোড়ে অবস’ান নেয়। এসময় বিশ্ববিদ্যা-লয়ের আইন ও বিচার বিভাগের ২য় বর্ষের ছাত্র হাবিব ক্যাম্পাসে আসতে থাকে। পরে বিক্ষুব্ধ অটোরিক্সা চালকেরা তাকে গাড়ি থেকে নামিয়ে বেধরক পেটাতে থাকে। এসময় স’ানীয় জনগণ তাকে সেখান থেকে উদ্ধার করে। পরে তাকে বিশ্ববিদ্যালয়ের চিকিৎসা কেন্দ্রে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়। এ ঘটনা ক্যাম্পাসে ছড়িয়ে পড়লে শিক্ষার্থীরা আবারও সড়ক অবরোধ করে। পরে প্রক্টরিয়াল বডি ঘটনাস’লে গিয়ে বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীদের প্রক্টর অফিসে নিয়ে আসেন। পরে প্রক্টরিয়াল বডি উভয় পক্ষের সাথে আলোচনায় বসেন এবং প্রকৃত অপরাধীকে খুজে বের করে দৃষ্টান-মূলক শাসি- দেওয়া আশ্বাস দেন।
বিশ্ববিদ্যালয় প্রক্টর চৌধুরী মোহাম্মদ জাকারিয়া ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, উভয় পক্ষের সাথে আলোচনা করে বিষয়টির সমাধান করে দেওয়া হয়েছে। পরবর্তিতে এরকম কোন ঘটনা ঘটলে ব্যাবস’া নেওয়া হবে। (সূএ:সোনালী সংবাদ)

পাতাটি ২৩৯ বার প্রদর্শিত হয়েছে।

সংগ্রহকারী:

 মন্তব্য করতে লগিন করুন