logo

   

বিস্তারিত সংবাদ

News Photo বিদ্যুতের দাবিতে অবরোধ, যুবলীগের বাধা
রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের সাধারণ শিক্ষার্থীরা গত সোমবার রাতে বিদ্যুতের দাবিতে বিশ্ববিদ্যালয়ের বিনোদপুর ফটকে রাজশাহী-ঢাকা মহাসড়ক অবরোধ করেন। এ সময় স্থানীয় যুবলীগের নেতা-কর্মীদের সঙ্গে শিক্ষার্থীদের পাল্টাপাল্টি ধাওয়ার ঘটনা ঘটে। এ ঘটনার সংবাদ সংগ্রহ করতে গিয়ে একজন সাংবাদিক আহত হন।
প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, রাতে বিশ্ববিদ্যালয়ের পাশের বিনোদপুর এলাকায় ঘন ঘন লোডশেডিং শুরু হয়। রাত সাড়ে ১১টার দিকে ওই এলাকার বিভিন্ন ছাত্রাবাসে অবস্থানকারী শিক্ষার্থীরা মহাসড়ক অবরোধ করেন। এতে যানচলাচলে বিঘ্ন ঘটে। এর একপর্যায়ে স্থানীয় যুবলীগের নেতা-কর্মীরা বিক্ষোভকারী শিক্ষার্থীদের বিরুদ্ধে অবস্থান নেন। তাঁরা লাঠিসোটা নিয়ে শিক্ষার্থীদের ধাওয়া করেন। উভয় পক্ষের মধ্যে দফায় দফায় পাল্টাপাল্টি ধাওয়া চলে। ঘটনার সংবাদ সংগ্রহ করতে গেলে স্থানীয় যুবলীগের কর্মীরা ফিন্যন্সিয়াল এক্সপ্রেস-এর বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিনিধি বেলাল হোসেনকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে আহত করেন। গুরুতর অবস্থায় তাঁকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। খবর পেয়ে পুলিশ ও র‌্যাবের সদস্যরা ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনেন।
রাজশাহী সিটি করপোরেশনের ৩০ নম্বর ওয়ার্ডের (বিনোদপুর এলাকা) যুবলীগের সভাপতি নুরুল আমিন অভিযোগ করেন, শিবিরের ইন্ধনে সড়ক অবরোধ করা হয়েছিল। শিবিরের কয়েকজন চরও এতে অংশ নেয়। তাদের কারণেই ওই পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়।
বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর চৌধুরী মুহম্মদ জাকারিয়া বলেন, সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিদের সঙ্গে আলোচনা করা হচ্ছে। এ ঘটনায় জড়িতদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। মতিহার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল খায়ের বলেন, বিনোদপুরে পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। তবে কোনো মামলা হয়নি।

পাতাটি ২৬০ বার প্রদর্শিত হয়েছে।

সংগ্রহকারী:

 মন্তব্য করতে লগিন করুন